বর্তমান স্মা’র্টফোনের যুগে স্কুল স্টুডেন্ট থেকে সবার হাতে হাতে ঘুরছে স্মা’র্টফোন। স্মা’র্টফোন ব্যবহারের স’ঙ্গে স’ঙ্গে ই বেড়েছে স্মা’র্টফোনের ব্যাটারি ফুলে যাওয়া, ফেটে যাওয়ার মতো ঘ’টনা। ফোনের ব্যাটারি ফুলে যাওয়া বা ফেটে যাওয়ার এমন ঘ’টনা প্রায় আমাদের চোখে প’ড়ে।

স্বা’ভাবিকভাবেই মানুষজনের মধ্যে তারপর থেকে ভীতির সঞ্চার ঘ’টেছে। চলুন আজ আপনাদের বলবো স্মা’র্টফোনের ব্যাটারি ফুলে যাওয়া বা ফেটে যাওয়ার কারণ কি কি থাকতে পারে। যেগু’লি জা’নার পর সামান্য সচে’তনতা অবলম্বন করলেই এরকম ঘ’টনা এড়িয়ে যাওয়া সম্ভব। জে’নে নিন ৬ টি গু’রুত্ব পূর্ণ কারণ আর সচে’তন হোন এই বিষয়ে।

হাত থেকে ফোন বারংবার পড়ে যাওয়া: আমাদের হাত থেকে ফোন যদি বারবার প’ড়ে যায়, তখন ব্যাটারি ফিজিক্যালি কিছু ড্যামেজ হয় এর ফলে শর্ট সার্কিট, ওভার হিটিং ইত্যাদি হতে পারে। যদি মনে হয় ব্যাটারি ঠিকঠাক নেই তখনই বদলে ফেলুন ব্যাটারি।

সস্তার চার্জার ব্যবহার: আপনার পুরোনো চার্জারটি ন’ষ্ট হয়ে গেছে অমনি আপনি একটা সস্তার চার্জার কিনে নিলেন। আবারও বলছি বাজার চলতি এইসব সস্তার চার্জার থেকে সা’বধান। এটি ফোন ব্লাস্টের অন্যতম কারণ।

ব্যাটারির তৈরির সময় কিছু ত্রুটি: এই ভুলটিতে ব্যবহারকারীদের কোনো হাত নেই। ফোনটি তৈরি করার সময় যদি লিথিয়াম-আয়ন ব্যাটারিকে সঠিকভাবে পরীক্ষা না করা হয় তবে ফুলতে পারে, ফাটতে পারে।

অতিরি’ক্ত চার্জ দেওয়া: আম’রা অনেকেই সারারাত ফোন চার্জে বসিয়ে দিই। এটির ফলে ফোন ওভার হিটিং করে ও ব্যাটারিও ক্ষ’তিগ্রস্ত হয়। তাই এই কাজ থেকে দূ’রে থাকুন।

অতিরি’ক্ত গেম খেলা: ফোন গরম হওয়ার জন্য অন্যতম একটি জিনিস হলো প্রসেসর। অতিরি’ক্ত গেম খেললে প্রসেসরের উপর চা’প প’ড়ে। এর ফলে ফোন গরম হয়ে ব্যাটারি ফেটে যেতে পারে।

অধিক সময় ফোন রোদে ফে’লে রাখা: ফোনকে যদি অনেকক্ষণ রোদে ফে’লে রাখেন তাহলে ফোন গরম হয়ে যেতে পারে। ফোনের স্ক্রিনে দীর্ঘক্ষণ সূর্যের আলো পড়লে ফোন গরম হয় এটি এক গবেষণায় প্রমাণিত। এজন্য বাইরে যখন যাবেন তখন ফোনকে ব্যবহার যদি না করেন তাহলে হাতে নিয়ে ঘুরবেন না একটা ব্যাগের মধ্যে রাখু’ন। এতে আপনার ফোন সুরক্ষিত আর আপনিও।